ষষ্ঠ ধাপে ৯ পৌরসভা ও ১৬১ ইউপি নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু

১৬১টি ইউনিয়ন পরিষদ ও ৯টি পৌরসভায় ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে। সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) সকাল ৮টা থেকে শুরু হয়ে বিকেল ৪টা পর্যন্ত চলবে এই ভোটগ্রহণ। 

এরইমধ্যে
৪৩টি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়
নির্বাচিত হয়েছেন। এরমধ্যে বাগেরহাটেই ৩৮ জন। বাকি ৪ জন সন্দীপ ও একজন
খুলনার।

বাগেরহাটে ৬৬টি, খুলনায় ৩৪টি, সাতক্ষীরায় ২১টি, নোয়াখালীতে ১৩টি,
চট্টগ্রামে ১২টি এবং কক্সবাজারে ১৪টি ইউনিয়নে ভোট হবে। সীমান্তবর্তী এলাকায়
করোনা পরিস্থিতির অবনতি হওয়ায়, ১৬৭ ইউনিয়নে ভোট স্থগিত করা হয়েছিল।
এরমধ্যে ১৬১টিতে ভোট হচ্ছে আজ। ভোট সুষ্ঠু করতে সব প্রস্তুতি শেষ করেছে
নির্বাচন কমিশন।

এদিকে নয় পৌরসভার মধ্যে তিনটি পৌরসভায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় মেয়র
নির্বাচিত হয়েছেন ক্ষমতাসীনরা। বাকি পৌরসভায় মেয়র পদে লড়াই করছেন ২৭ জন।

ভোটগ্রহণের জন্য সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।
করোনাভাইরাস মহামারির কারণে স্বাস্থ্যবিধি মেনে এ নির্বাচন হবে বলে
জানিয়েছে সাংবিধানিক এ প্রতিষ্ঠানটি। ইসি থেকে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলা
হয়েছে, যে কোনো ধরনের অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত থাকবে
আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

ইসির কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, নির্বাচনের প্রচার শেষ হয়েছে শনিবার দিবাগত
রাত ১২টায়। আইনশৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে র‌্যাব, পুলিশ ও আনসারসহ আইনশৃঙ্খলা
রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা নির্বাচনি এলাকায় টহল দিচ্ছেন। আইনশৃঙ্খলা
রক্ষাকারী বাহিনীর সঙ্গে রয়েছেন নির্বাহী ও জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট।
নির্বাচন নিয়ে উৎকণ্ঠা ও অজানা শঙ্কায় রয়েছে ভোটার ও প্রার্থীরা। ভোট নিয়ে
টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে সব নির্বাচনি এলাকায়।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author