লাউকাঠী সেতুতে বাতি না থাকায় ভোগান্তি

পটুয়াখালী-বরিশাল মহাসড়কের লাউকাঠী সেতুতে বাতি না থাকা এবং পায়ে হাঁটার পথে স্লাব ভাঙ্গা থাকাতে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে এই সেতু ব্যবহারকারীদের। সংকট সমাধানে সড়ক ও জনপথ বিভাগকে একাধিকবার জানালেও কোন প্রতিকার মেলেনি, এমনই অভিযোগ স্থানীয়দের। তবে সড়ক ও জনপথ বিভাগের কর্মকর্তারাদের
বক্তব্য বললেন, প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

পটুয়াখালীসদর উপজেলার মধ্য দিয়ে বয়ে গেছে লাউকাঠী নদী। এর একপাশে জেলা শহর অন্য
পাশে সদর উপজেলার তিন ইউনিয়ন। প্রতিদিন লাউকাঠী, ইটবাড়িয়া ও বদরপুর, এই তিন ইউনিয়নের মানুষকে সেতু পারাপার হতে হয়
কখনো পায়ে হেঁটে আবার কখনওবা যানবাহনে করে। এ ছাড়া সারাদেশ থেকে পটুয়াখালী ও কুয়াকাটায়
চলাচলের যানবাহনগুলোও চলে এ সেতু দিয়ে।

কিন্তু সেতুতে পায়ে হাঁটার পথের কংক্রিট স্লাবগুলো ভাঙ্গা থাকা এবং লাইট পোস্ট
গুলোতে বাতি না থাকায়  ভোগান্তিতে পড়তে হয়
এই পথে চলাচলকারীদের। মাঝে মধ্যে ঘটে দুর্ঘটনা। এ ছাড়া আলো না থাকায় রাতে সেতুতে
বসে বখাটেদের আড্ডা।

এ বিষয়ে
পটুয়াখালী সড়ক ও জনপথ
বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী জানান, বিভিন্ন
সময় ব্রীজে আলোর ব্যবস্থা
করলেও রাতের আধারে লাইট
এবং তার চুরি হয়ে যাওয়ায়
সমস্যার হচ্ছে।

কিভাবে সমস্যা
সমাধান করা যায় সে বিষয়ে
উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে উদ্যোগ
নেয়া হবে বলেও জানান এ কর্মকর্তা।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author