বাজারে চাল ও তেলের মূুল্যে ঊর্ধ্বগতি

দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতিতে অসহায় স্বল্প আয়ের মানুষ। বাজারে এখনো নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম চড়া। চাল ও তেলের দামে এখনো লাগাম টানা যায়নি বলে জানান সাধারণ মানুষ। চালের দামে ঊর্ধ্বগতির সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে ভোজ্যতেলের দামও। বিশ্ববাজারে সয়াবিন ও পাম তেলের মূল্যবৃদ্ধির কারণে দেশের বাজারে দাম বাড়াতে হচ্ছে বলে জানান ব্যবসায়ীরা।

কিছুদিন আগে স্থির থাকলেও আবারও চালের দাম বেড়েছে কেজিতে ৩ থেকে ৪ টাকা পর্যন্ত। এ বিষয়ে সরকারের নজরদারি বাড়ানোর দাবি জানিয়েছেন ক্রেতাদের। এ নিয়ে খুচরা বিক্রেতারা দোষ চাপালেন পাইকারি বিক্রেতাদের ওপর। আন্তর্জাতিক বাজারের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে ভোজ্যতেলের মূল্য নিশ্চিত করার কথা থাকলেও এখনো বাজারে নেই এর কোনো প্রভাব।  বরং দাম বাড়ায় পুড়ছে সাধারণ মানুষ।

বাইরে তেলের দাম কমে আসলে দেশের বাজারেও এর ফল পাওয়া যাবে বলে মনে করেন ব্যবসায়ীরা। পরিকল্পিতভাবে চালের বাজারে অস্থিরতা সৃষ্টি করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করনে ভোক্তারা। তাই বাজার নিয়ন্ত্রণে সরকারকে আরো কঠোর হওয়ার দাবি জানান নগরবাসী।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author