বিজয় দিবসে ঘরোয়া অনুষ্ঠান করা যাবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, আগামী ১৬ ডিসেম্বর
মহান বিজয় দিবসের অনুষ্ঠান করতে হবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঘরোয়া পরিবেশে।
অনুষ্ঠান আয়োজনের আগে পুলিশের অনুমতি নিতে হবে।

আজ মঙ্গলবার মহান বিজয় দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় উদযাপনের বিষয়ে আন্তমন্ত্রণালয়ের ভার্চুয়াল সভা শেষে মন্ত্রী এ কথা জানান।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, স্বাভাবিকভাবেই মহান বিজয় দিবসে আনন্দের দিনে
লোকজন বাইরে বেরিয়ে আসবে। এতে মানুষের নিরাপত্তা ও স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত
করার বিষয়ে আমরা আলোচনা করেছি। তিনি বলেন, বিজয় দিবস উপলক্ষে স্বাস্থ্যবিধি
মেনে ঘরোয়া অনুষ্ঠান যাঁরা করতে চান তারা করতে পারবেন। কিন্তু সেই বিষয়ে
আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে আগে জানাতে হবে। যাতে আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী তাদের
পাশে থেকে নিরাপত্তার দায়িত্ব পালন করতে পারে। কোথায় বিজয় দিবসের ঘরোয়া
অনুষ্ঠান করছেন, কীভাবে করছেন, কতজনের আয়োজন, কারা কারা সেই অনুষ্ঠানে
থাকবেন- তা আগেই জানাতে হবে।

‘অনুষ্ঠানগুলোতে যাতে নাশকতা না করতে পারে সেজন্য দেশব্যাপী গোয়েন্দা
কার্যক্রম বাড়ানোর জন্য গোয়েন্দা সংস্থার প্রতিনিধিরা তাঁদের মতামত
দিয়েছেন। গোয়েন্দাদের মতামত মাথায় রেখে আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী কাজ করবে।
সেই অনুযায়ী তারা কাজ করছে।‘

মন্ত্রী আরো বলেন, বিজয় দিবসে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের নির্দেশনা অনুযায়ী
সঠিক মাপ ও রঙের জাতীয় পতাকা সঠিকভাবে উত্তোলন করতে হবে। স্বাস্থ্যবিধি
মেনে সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে গমনাগমন ও পুষ্পস্তবক অর্পণকালীন যথাযথ
নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হবে। প্রত্যেকবার যেভাবে নেওয়া হয়, আমাদের
আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ঠিক সেভাবেই থাকবে।

কূটনীতিকদের মধ্যে যারা স্মৃতিসৌধে যাবেন প্রতিবারের মতো এবারও তাঁদের জন্য যথাযথ নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান মন্ত্রী।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author