ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় আজারবাইজানে ২১ জন নিহত

আজারবাইজানে আর্মেনিয় সেনাবাহিনীর ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় ২১ বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে অনেকে।

বুধবার (২৮ অক্টোবর) বার্দা শহরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হলে হতাহতের এ ঘটনা ঘটে। এতে ওই এলাকার বেশ কয়েকটি ভবন, রাস্তাঘাট ও যানবাহন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। তবে হামলার কথা অস্বীকার করে আজারবাইজানের বিরুদ্ধে একটি মাতৃসদনে পাল্টা হামলার অভিযোগ এনেছে আর্মেনিয়া। সম্প্রতি তৃতীয় দফা যুদ্ধবিরতিতে সম্মত হলে দু’দেশের বিরুদ্ধেই তা লঙ্ঘণের অভিযোগ উঠেছে।

এদিকে, নিজ সীমান্তে রুশ সীমান্তরক্ষী বাহিনী মোতায়েনের খবর নিশ্চিত করেছেন আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী নিকোল পাশিনিয়ান। তিনি বলেন, এটি তো বিশেষ কিছু নয়। রাশিয়ান বর্ডার গার্ড বাহিনী তুরস্ক ও ইরানের সঙ্গে আর্মেনিয়ার সীমান্তে পৌঁছেছে। এর পাশাপাশি রাশিয়ান বর্ডার গার্ড বাহিনী আর্মেনিয়ার দক্ষিণ-পূর্ব ও দক্ষিণ-পশ্চিম সীমান্তেও এসেছে।

২৮ সেপ্টেম্বর থেকে নাগোর্নো-কারাবাখ অঞ্চল নিয়ে যুদ্ধে অবতীর্ণ হয়েছে
আর্মেনিয়া ও আজারবাইজান। একাধিকবার যুদ্ধবিরতি ঘোষণার পরও একে অপরকে
দোষারোপ করে সেই বিরতি ভঙ্গ করেছে। চালিয়ে যাচ্ছে যুদ্ধ।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author