নেপালের কাঠমাণ্ডুতে বিমান দুর্ঘটনায় নিহতের স্মরণ করছে বাংলাদেশ।  আজ সারাদেশে রাষ্ট্রীয়ভাবে শোক পালন করা হচ্ছে। সরকারি বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হয়েছে। এদিকে, বিমান দুর্ঘটনায় আহত শেহরিন আহমেদ দেশে আনা হয়েছে। দুর্ঘটনায় আহত দশজনের মধ্যে সাতজনকে কাঠমাণ্ডু ছাড়ার অনাপত্তিও দিয়েছে নেপাল কর্তৃপক্ষ।

কাঠমাণ্ডু ট্রাজেডিতে প্রাণ গেছে বাংলাদেশের ২৬ জনের। বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রীয়ভাবে স্মরণ করা হয় তাদের। সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হয়। অনেককে কালো ব্যাজ ধারন করতেও দেখা যায়।

শোক র‌্যালি করেছে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি, ডিআরইউ। র‌্যালিটি নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদিক্ষণ করে। এদিকে, ইউএস বাংলার বিধ্বস্ত বিমানটির কো পাইলট পৃথুলা রশিদের পরিবারকে সমবেদনা জানাতে তার বাসায় যান আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। নিহতদের মরদেহ দ্রুত ফেরত আনার কথা জানান তিনি।

দুর্ঘটনায় আহত বিমানযাত্রী শেহরিন আহমেদকে দেশে আনা হয়েছে। ডাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের চিকিৎসক জানান, সর্বোচ্চ সেবা দিতে প্রস্তুত রয়েছেন তারা।

অন্যদিকে, আহত ১০ বাংলাদেশির মধ্যে সাতজনকে কাঠমান্ডু ছাড়ার অনাপত্তিপত্র দেয়া হয়েছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য একজনকে পাঠানো হয়েছে সিঙ্গাপুরে।

 

 

 

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author

Leave a comment