লালমনিরহাটে একই আঙিনায় মসজিদ-মন্দির

ধর্মীয় সম্প্রীতির অনন্য এ দৃষ্টান্তের অবস্থান লালমনিরহাট জেলা শহরের পুরান বাজার। একই আঙিনায় মসজিদ ও মন্দির। মিলেমিশে চলছে মুসলিম সম্প্রদায়ের ইবাদত আর হিন্দু সম্প্রদায়ের উপাসনা। সময়মত হচ্ছে আযান ও নামাজ, নিয়ম করে চলে পূজা অর্চনাও। যে মাঠে হয় ওয়াজ মাহফিল, সেই মাঠেই বসে মেলা। সাম্প্রদায়িক সম্প্রিতির যেন অনন্য এক দৃষ্টান্ত।

একপাশে পুরান বাজার জামে মসজিদ, অন্যপাশে কালিবাড়ি মন্দির। দুই ভবনের দেয়ালের দূরত্ব মাত্র দুই ফুট। মসজিদে আযান শুরুর আগেই বন্ধ হয়ে যায় মন্দিরের পূজা-অর্চনা। মুসলমান ধর্মাবলম্বীরা নামাজ ও ইবাদত-বন্দেগি শেষ করেন। এরপরই শুরু হয় মন্দিরে পূজা-অর্চনা। এরপর দু’প্রতিষ্ঠানের সামনের মাঠে একসঙ্গে গল্পে মাতেন ইসলাম ও হিন্দু ধর্মাবলম্বিরা।

এটি ধর্মীয় হানাহানি বন্ধে এটি একটি দৃষ্টান্ত। এমন সম্প্রতি দেখতে লালমনিরহাটে আসেন দেশবিদেশের মানুষ।বিভিন্ন সময় নানান কারণেই পরিবর্তন হচ্ছে ইমাম-মুয়াজ্জিন, বদলাচ্ছে পুরোহিত। কিন্তু ভাঙ্গছে না বন্ধন। এমন তথ্য দিলেন লালমনিরহাট পুরোহিত কালিবাড়ি মন্দির শংকর চক্রবর্তী। আরবার লালমনিরহাট পুরান বাজার জামে মসজিদের মুয়াজ্জিন মো. রফিকুল ইসলাম।

দু’ধর্মের মানুষই মনে করেন ধর্ম
নিয়ে রশি টানাটানি করা ঠিক নয়। সবার লক্ষ্য হওয়া উচিত মানবসেবা আর সৃষ্টিকর্তার
কৃপা লাভ।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author