মুক্তি পেলেন খালেদা জিয়া

দুবছর
এক মাস ১৬ দিন  কারাভোগের পর  মুক্তি পেলেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।
বিকেল সোয়া চারটার দিকে বঙ্গবন্ধু মেডিক্যালের প্রিজন সেল হাসপাতাল থেকে বের হয়ে
আসেন তিনি। ছোটভাই শামীম ইস্কান্দরের জিম্মায় তাকে হস্তান্তর করা হয়। বাসায় অবস্থান
করে চিকিৎসা নেয়ার শর্তে সরকারের নির্বাহী আদেশে ছয়মাসের জন্য মুক্তি দেয়া হয়
বিএনপি চেয়ারপারসনকে।

সরকারের নির্বাহী আদেশে বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার দন্ড ছয়মাসের জন্য স্থগিত করে শর্ত সাপেক্ষে মুক্তির ঘোষণা দেয়া হয় মঙ্গলবার। আইনী প্রক্রিয়া শেষে বুধবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বেগম জিয়াকে তার ভাই শামীম ইস্কান্দারের জিম্মায় মুক্তি দেয়া হয়।

করোনা সংক্রমন এড়াতে ভীড় না করতে বলা হলেও বিএনপি নেতাকর্মীরা
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে ও রাস্তায় অবস্থান নেন। কড়া পাহারায়
হাসপাতাল থেকে বেগম জিয়াকে নেয়া হয় গুলশানের
বাসা ফিরোজায়। সেখানেও নেতাকর্মীরা ভিড় করেন।সেখানে গণমাধ্যম
কর্মীদের বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর জানান, আপাতত বাসাতেই চিকিৎসা নেবেন
বেগম জিয়া। জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় সাত বছরের
দণ্ড নিয়ে ২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে কারাগারে ছিলেন
বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author