শনিবার বাংলাদেশ উপকূলে আঘাত হানতে পারে বুলবুল

ঘূর্ণিঝড় বুলবুল শনিবার সন্ধ্যায় বাংলাদেশ উপকূলে আঘাত
হানতে পারে। এ সময় উপকূলীয় এলাকায় ৫ থেকে ৭ ফুট উচ্চতায় জলোচ্ছ্বাসের আশঙ্কা
রয়েছে। এ তথ্য জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর
রহমান। বিকেলে সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত এক বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা
বলেন। প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘উপকূলীয়
আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে সর্বোচ্চ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। ১৩টি জেলার সরকারি
কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল করে তাঁদের নিজ নিজ কর্মস্থলে থাকার নির্দেশ
দেওয়া হয়েছে।

মাইকিং করে উপকূলবাসীকে নিরাপদে আশ্রয়ে থাকার পরামর্শ দিচ্ছেন ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচির স্বেচ্ছাসেবকরা। বুলবুলের প্রভাবে বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকেই ইপকূলীয় জেলাগুলোতে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হচ্ছে।

লাল পতাকা টাঙিয়ে ঘূর্ণিঝড়ের সতর্কতা জারি করা হয়েছে উপকূলে। উত্তাল হয়ে উঠছে সাগর। অভ্যন্তরীণ রুটে সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ রয়েছে। আবহাওয়া অধিদপ্তরের নির্দেশনার পর, সাগর থেকে ট্রলার নিয়ে উপকূলে ফিরছেন জেলেরা।

জরুরি সভা করে ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় আশ্রয়কেন্দ্র, কন্ট্রোল রুম ও ত্রাণসহ সব ধরনের প্রস্তুতির কথা জানিয়েছে প্রশাসন। সাগর উত্তাল থাকায় চট্টগ্রাম, মংলা ও কক্সবাজার নৌবন্দরের বহির্নোঙরে জাহাজ থেকে সব ধরনের পণ্য ওঠানামা বন্ধ রেখেছে কর্তৃপক্ষ।

এদিকে, শনিবার খুলনা উপকূলে আঘাত হানতে পারে বলে জানিয়েছেন, আবহাওয়াবিদ আবদুর
রহমান। অন্যদিকে সমুদ্র উত্তাল থাকায় টেকনাফ-সেন্টমার্টিন রুটে জাহাজসহ সব ধরণের
নৌযান চলাচল বন্ধ রয়েছে। একারনে সেন্টমার্টিনে এক হাজারের বেশি পর্যটক আটকা
পড়েছেন।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author