দুই বছরেও আলোর মুখ দেখেনি বনানীর ফুডকোর্ট

প্রায় দুবছর আগে নির্মাণকাজ শেষ হলেও আলোর মুখ দেখেনি বনানীর ফুডকোর্ট। প্রয়াত মেয়র আনিসুল হকের হাত ধরে নির্মিত ফুডকোর্টের জায়গায় গাড়িপার্কিং নির্মাণ করার কথা জানিয়েছেন বর্তমান মেয়র আতিকুল ইসলাম। তার এ সিদ্ধান্তে হতাশা জানিয়ে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এতে সরকারি অর্থ অপচয়ের পাশাপাশি সরকারের ভাবমূর্তিও ক্ষুন্ন হবে।

রাজধানীর যান্ত্রিক জীবনে কিছুটা সময় খোলা আকাশের নিচে প্রাণবন্ত আড্ডায় মেতে উঠবে নগরবাসী, এমন ভাবনা থেকেই ছাদবিহীন ফুডকোর্ট নির্মাণের পরিকল্পনা করেছিলেন সাবেক মেয়র আনিসুল হক। বনানী ডিএনসিসি কমিউনিটি সেন্টারের পাশেই, প্রায় এক বিঘা জমির ওপর ২ কোটি ৭ লাখ ১৯ হাজার ৩৭৮ টাকা ব্যয়ে তৈরি করা হয় ফুডকোর্টটি।

নির্মাণ কাজ শুরু হয় ২০১৭ সালের ২২ মে। আর কাজ শেষ হয় সে বছরেরই ৩০ অক্টোবর। এরপর নানা জটিলতায় ফুডকোর্টটি চালু না হওয়ায় এখন ভবঘুরেদের নিয়মিত আড্ডা বসে এখানে। ডিএনসিসি বর্তমান মেয়র বলছেন, নগরবাসীর প্রয়োজনে ফুডকোর্টটির  জায়গায়  তৈরি করা হবে আধুনিক গাড়ি পার্কিং ব্যবস্থা।

জবাবদিহিতা না থাকায় এসব প্রকল্পের মাধ্যমে জনগণের অর্থেরই অপচয় হচ্ছে বলে মনে করেন নগর পরিকল্পনাবিদরা। তাই যে কোন প্রকল্প বাস্তবায়নের আগে এর উদ্দেশ্য কতটুকু সফল হবে তা বিবেচনায় নিয়ে কাজ করা জরুরি বলে মনে করেন এ বিশেষজ্ঞ।  

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author