মিয়ানমারে রোহিঙ্গা নির্যাতনের অভিযোগ খতিয়ে দেখতে প্রাথমিক তদন্ত শুরু করেছে হেগের আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত। মঙ্গলবার আইসিসি’র শীর্ষ আইনজীবী ফাতু বেনসুদা এক বিবৃতিতে এ কথা জানান।

তদন্তে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর হাতে রোহিঙ্গাদের মৌলিক অধিকার হরণ, হত্যা, যৌন নির্যাতন জোরপূর্বক দেশত্যাগে বাধ্য করা, বাড়িঘর ধ্বংস করা ও সম্পদ লুটপাটের অভিযোগ খতিয়ে দেখা হবে। এর ভিত্তিতে আনুষ্ঠানিকভাবে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে বিচারিক কার্যক্রম শুরু করবে আইসিসি।

মিয়ানমার সরকারের বিরুদ্ধে মঙ্গলবার জাতিসংঘের তদন্ত দলের একটি প্রতিবেদন প্রকাশের পর এ পদক্ষেপ নিলো আইসিসি। চারশ’ ৪৪ পৃষ্ঠার ওই প্রতিবেদনে মিয়ানমার সরকারের বিরুদ্ধে রোহিঙ্গা নির্যাতনের বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরা হয়।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author

Leave a comment